সোমবার, ২৪ Jun ২০১৯, ০৭:৫৫ অপরাহ্ন

নির্বাচনের পর সরকার বিরোধী নেতাদের হয়রানি করছে : রিজভী

নির্বাচনের পর সরকার বিরোধী নেতাদের হয়রানি করছে : রিজভী

ঢাকা : নির্বাচনের পর সরকার দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক) দিয়ে বিরোধী দলের নেতাকর্মীদের হয়রানি করছে বলে অভিযোগ করেছে বিএনপি। দুপুরে এক সংবাদ সম্মেলনে দলের সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী এ অভিযোগ করেন।

তিনি বলেন, ‘দেশজুড়ে বিএনপির নেতাকর্মীদের পুলিশি হয়রানি ও মামলা-হামলার পর দুর্নীতি দমন কমিশনকে (দুদক) দিয়ে বিরোধী দলের নেতাকর্মীদের প্রতিনিয়ত হয়রানি করা হচ্ছে। বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য মির্জা আব্বাস ও মহিলা দলের সভানেত্রী আফরোজা আব্বাসের বিরুদ্ধে আবারো মামলা দায়ের করেছে দুদক।’

রিজভী আহমেদ বলেন, ‘মির্জা আব্বাস ও আফরোজা আব্বাসের বিরুদ্ধে এখন কেন টানাহেঁচড়া শুরু করেছে? নির্বাচন হয়েছে, সেই নির্বাচনে দুইজনই প্রার্থী ছিলেন। অনেক হামলা হয়েছে তাদের ওপর। এর মধ্যেও তারা নির্বাচনে অংশ নিয়েছেন-এটাই হচ্ছে তাদের অপরাধ। অপরাধ তাদের তারা মুক্তকণ্ঠে বেগম খালেদা জিয়ার পক্ষে, গণতন্ত্রের পক্ষে কথা বলেন। তারা যদি নিশ্চুপ থাকতেন তাহলে তাদের ওপর দুদকের খড়গ নেমে আসত না। আমরা বলতে চাই, দুদক বিরোধীদলকে নির্যাতন করার জন্য যাঁতাকল হিসেবে কাজ করছে।’ এ সময় অবিলম্বে মির্জা আব্বাস ও আফরোজা আব্বাসের বিরুদ্ধে দায়ের করা মিথ্যা মামলা অবিলম্বে প্রত্যাহারের দাবি জানান তিনি।

বিএনপির এই নেতার অভিযোগ, গত ১০ বছরে সরকারদলীয় নেতাকর্মীরা লাখ লাখ কোটি টাকা লুট করে নিলেও সব ব্যাংক লুট হয়ে গেলেও দুদক চোখ বন্ধ করে বসে আছে। গণমাধ্যমে মন্ত্রী-এমপিদের বিরুদ্ধে সাগর চুরির খবর প্রকাশিত হলেও, খোদ সংসদে দাঁড়িয়ে সরকারের মন্ত্রীরা সাগর চুরির কথা বললেও দুদক একেবারে পাথরের মূর্তির মতো চুপচাপ বসে থেকেছে।

Print Friendly, PDF & Email

নিউজটি শেয়ার করুন..

© All rights reserved © 2018 BanglarKagoj.Net
Design & Developed BY ThemesBazar.Com