রবিবার, ২০ অক্টোবর ২০১৯, ০৭:৫৫ অপরাহ্ন

কর্তৃপক্ষের অনুমোতি ব্যতিরেকে ভুয়া মেডিকেল সনদে শিক্ষক দম্পতির বিদেশ গমন

কর্তৃপক্ষের অনুমোতি ব্যতিরেকে ভুয়া মেডিকেল সনদে শিক্ষক দম্পতির বিদেশ গমন

নালিতাবাড়ী (শেরপুর) : যথাযথ কর্তৃপক্ষের কোনপ্রকার অনুমোতি না নিয়ে গোপনে পাসপোর্ট ও ভিসা করে সুদূর আমেরিকায় দীর্ঘ সাড়ে চার মাস কাটিয়ে কর্মস্থলে অনুপস্থিত ছিলেন চৈতন্য পাল ও শান্তি রানী দাস নামে শিক্ষক দম্পতি। তারা উভয়ই শেরপুরের নালিতাবাড়ী উপজেলায় পৃথক সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে কর্মরত।
উপজেলা শিক্ষা অফিস সূত্র জানায়, উপজেলার খালভাঙ্গা সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক চৈতন্য পাল ও জয়নদ্দিনপাড়া সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক তারই স্ত্রী শান্তি রানী দাস গেল বছরের ১৫ সেপ্টেম্বর থেকে চলতি বছরের ৩০ জানুয়ারি পর্যন্ত কর্মস্থলে অনুপস্থিত ছিলেন। কোনপ্রকার ছুটি না নিয়ে এবং যথাযথ কর্তৃপক্ষকে না জানিয়ে তারা গোপনে পার্সপোর্ট ও ভিসা করে স্বপরিবারে পাড়ি জমান সুদূর আমেরিকায়। সেখানে ওই সাড়ে চার মাস কাটিয়ে নাগরিকত্ব গ্রহণ করেন। এরপর দেশে ফিরে এসে উভয়ই মেডিকেল সনদ দেখিয়ে ছুটির আবেদন করেন। শুধু তাই নয়, দাখিলকৃত উভয়ের মেডিকেল সনদই একজন গাইনী চিকিৎসকের কাছ থেকে সংগ্রহ করা হয়েছে বলেও জানায় সূত্র। ফলে দাখিলকৃত মেডিকেল সনদের বৈধতা নিয়েও প্রশ্ন উঠেছে।
এদিকে অবৈধভাবে বিদেশ কাটিয়ে আসার পরও বকেয়া বিল-বেতন উত্তোলনের আবেদন করে তদ্বির চালিয়ে আসছেন ওই শিক্ষক দম্পতি।
এ বিষয়ে প্রধান শিক্ষক চৈতন্য পাল বলেন, সবাই যেভাবে ছুটি নেয়, আমিও সেভাবে নিয়েছি। এরকম আরও আছে। গাইনি চিকিৎসক কর্তৃক তার মেডিকেল সনদের বিষয়ে বলেন, আসলে এটা যেভাবে হয় অফিসে সেভাবেই হয়েছে।
উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তা ফজিলাতুন্নেছা বিষয়টির সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, কিছুটা অনিয়মতো হয়েছেই। তারা কোন নিয়ম মেনে ছুটি নেননি।

Print Friendly, PDF & Email

নিউজটি শেয়ার করুন..

© All rights reserved © 2018 BanglarKagoj.Net
Design & Developed BY ThemesBazar.Com
error: Content is protected !!