1. admin@banglarkagoj.net : admin :
মঙ্গলবার, ০৭ এপ্রিল ২০২০, ০২:১৩ পূর্বাহ্ন

করোনাভাইরাস: যেভাবে শুতে বলছেন বিজ্ঞানীরা

  • আপডেট টাইম :: বুধবার, ২৫ মার্চ, ২০২০
  • ৬৭ বার পড়া হয়েছে

লাইফ স্টাইল ডেস্ক : স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞরা ইতিমধ্যে সতর্ক করেছেন যে, উপসর্গ প্রকাশ পায়নি এমন মানুষজনের মধ্যেও করোনাভাইরাস থাকতে পারে। তবে কারো জ্বর এবং শুকনো কাশি থাকলেও আদতে সে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত কিনা তা জানা মুশকিল। কেননা সাধারণ কারণেও জ্বর বা সর্দি-কাশি হতে পারে।

এবার একদল বিজ্ঞানী পরামর্শ দিয়েছেন, যদি মনে করেন আপনার এই ভাইরাস রয়েছে তাহলে আপনার ঘুমানোর পজিশন পুনর্বিবেচনা করা বুদ্ধিমানের কাজ হতে পারে।

ঝাংদা হাসপাতালের গবেষকরা দেখতে পেয়েছেন যে, আপনার যদি এই রোগ হয় তাহলে মুখ নিচের দিকে রেখে ঘুমালে শ্বাস-প্রশ্বাসের উন্নতি হতে পারে। গবেষণায় গবেষকরা ভেন্টিলেটরে থাকা ১২ জন গুরুতর অসুস্থ করোনা রোগীকে পর্যবেক্ষণ করেছেন এবং দেখেছেন যে মুখ নিচের দিকে রেখে শোয়া ফুসফুসের জন্য ভালো।

গবেষণাপত্রটি আমেরিকান থোরাসিক সোসাইটির আমেরিকান জার্নাল অব রেসপিরেটরি অ্যান্ড ক্রিটিক্যাল কেয়ার মেডিসিন জার্নালে প্রকাশিত হয়েছে।
গবেষণার নেতৃত্বদানকারী অধ্যাপক হাইবো কিউ বলেন, ‘এই স্ট্যাডিটি গুরুতর অসুস্থ কোভিড-১৯ রোগীদের ফুসফুসের আচরণের প্রথম বিবরণ, যেখানে এ পজিশনে রোগীদের কৃত্রিম শ্বাস-প্রশ্বাস এবং পজেটিভ প্রেসার গ্রহণ দেখা গেছে।’

তিনি বলেন, ‘এটা ইঙ্গিত দেয় যে কিছু রোগী হাই পজেটিভ প্রেসারের ক্ষেত্রে ভালো রেসপন্স করতে পারে না এবং বিছানায় প্রোন পজিশনে (নিচের দিকে মুখ করে) ভালো রেসপন্স জানায়।’

যদিও গবেষণায় মাত্র ১২ রোগীকে মূল্যায়ন করা হয়েছে তবে গবেষকরা আশা করছেন, নতুন এই আবিষ্কার উপসর্গ দেখানো লোকদের বিছানায় তাদের দেহের অবস্থান পুনরায় চিন্তা করতে উত্সাহিত করবে।

গবেষণার সহ-লেখক প্রফেসর চুন প্যান বলেন, ‘এ গবেষণায় যদিও রোগীর সংখ্যা কম, কিন্তু আমরা দেখতে পেয়েছি, অনেক রোগীর ফুসফুস হাই পজেটিভ প্রেসারে পুনরায় খুলেনি এবং আরো প্রেসার বাড়ানোর চেষ্টা উপকারের চেয়ে ক্ষতি বেশি করতে পারে। এর বিপরীতে রোগী যখন প্রোন পজিশনে থাকে তখন শ্বাস-প্রসারের সুবিধা হয়। আর কোভিড-১৯ রোগীদের কৃত্রিম শ্বাস-প্রশ্বাসের উন্নতির জন্য তা গুরুত্বপূর্ণ।’

শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর
© All rights reserved © 2019 BanglarKagoj.Net
Theme Customized By BreakingNews