1. admin@banglarkagoj.net : admin :
বৃহস্পতিবার, ০২ এপ্রিল ২০২০, ০৮:৫০ অপরাহ্ন

বান্দরবানে সবধরনের যান চলাচল বন্ধ

  • আপডেট টাইম :: বৃহস্পতিবার, ২৬ মার্চ, ২০২০
  • ৩২৮ বার পড়া হয়েছে

বান্দরবান : করোনা ভাইরাসের সংক্রমন প্রতিরোধে সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখার লক্ষ্যে সরকারের গৃহীত পদক্ষেপের কারনে বৃহস্পতিবার সকাল থেকে বান্দরবানের সাথে বন্ধ হয়ে পড়েছে সারাদেশের সড়ক যোগাযোগ ব্যবস্থা। শুধু দূরপাল্লার নয়, শহরের ছোট বড় সবধরণের যান চলাচলও বন্ধ রয়েছে।
বৃহস্পতিবার (২৬ মার্চ) দুপুরে বাস স্টেশন ট্রাফিক মোড় রোয়াংছড়ি বাস স্টেশন রুমা বাসস্টেশন এলাকা ঘুরে দেখা গেছে, কোন ধরনের যান চলাচল করছে না। এমনকি শহরে টমটম সিএনজি মাহেন্দ্র এমনকি রিকশা চলাচলও বন্ধ রয়েছে। এতে ভোগান্তিতে পড়েছে নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্যের বাজার করতে আসা জনসাধারণ।
তবে সরকারী ঘোষনা অনুযায়ী বাজারে নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্য মুদি, কাঁচাবাজার ও ওষুধ এর দোকান ছাড়া অন্য সব দোকানপাটও বন্ধ রয়েছে। প্রয়োজনীয় পন্য কিনতে অনেকে বাজারে এলেও কোন ধরনের পরিবহন না থাকায় পণ্যদ্রব্য নিয়ে বাড়ি ফিরতে ভোগান্তিতে পড়েছে তারা। বাজার করতে আসা কয়েকজন জানান, সরকার নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্যের দোকান খোলা রেখেছে যাতে মানুষ জরুরী দ্রব্য ক্রয় করতে পারে। কিন্তু শহরে টমটম, সিএনজি ও রিকশা সব পরিবহন বন্ধ। তাহলে আমরা প্রয়োজনীয় দ্রব্য ক্রয় করে বাসায় নিব কিভাবে? যেহেতু প্রয়োজনীয় পণ্যের দোকান খোলা, মানুষ জরুরী জিনিষপত্র কিনবে। সেহেতু কিছু টমটম, রিকশা ও সিএনজি চলাচলের অনুমতি দেয়া দরকার ছিল। না হলে মানুষ জিনিসপত্র নিয়ে বাসায় যাবে কিভাবে?
এদিকে সকাল থেকে সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখতে সেনা সদস্যদের শহরে টহল দিতে দেখা গেছে। পরিবহন না চলায় রাস্তায় মানুষের আনাগোনা তেমন একটা নেই বললেই চলে। চারিদিকে ফাঁকা এবং নিস্তবদ্ধতা বিরাজ করছে। জেলা প্রশাসক দাউদুল ইসলাম বলেন, সরকারী নির্দেশনা অনুযায়ী গণপরিবহন বন্ধ রাখা হয়েছে। মানুষজনকে বাড়িতে অবস্থান করার জন্য সচেতন করা হয়েছে। জরুরী পণ্যের দোকান সকাল ১০টা থেকে সন্ধা ৬টা পর্যন্ত খোলা রাখার জন্য বলা হয়েছে। যাতে মানুষ জরুরী দ্রব্য ক্রয় করতে পারে।
– এন এ জাকির

শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর
© All rights reserved © 2019 BanglarKagoj.Net
Theme Customized By BreakingNews