1. monirsherpur1981@gmail.com : banglar kagoj : banglar kagoj
  2. admin@banglarkagoj.net : admin :
শুক্রবার, ১২ অগাস্ট ২০২২, ০৮:২৫ অপরাহ্ন

পদবঞ্চিতের শঙ্কায় চেয়ার ছোড়াছুড়ি: নালিতাবাড়ী বিএনপি’র কাউন্সিল পণ্ড

  • আপডেট টাইম :: শুক্রবার, ১০ ডিসেম্বর, ২০২১

নালিতাবাড়ী (শেরপুর) : প্রায় এক যুগ পর শেরপুরের নালিতাবাড়ী উপজেলা ও শহর বিএনপি’র কমিটি ঘোষণার লক্ষ্যে আয়োজিত কাউন্সিল পণ্ড হয়ে গেছে। প্রথম অধিবেশন শেষে কাউন্সিলস্থলে পদ বঞ্চিতের শঙ্কায় বিএনপি’র কতিপয় কর্মীর অতর্কিত হামলা ও চেয়ার ছোড়াছুড়িতে এ ঘটনা ঘটে। ফলে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রাখতে নতুন কমিটি ঘোষণা না করেই ফিরে যান কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দ। বৃহস্পতিবার (৯ ডিসেম্বর) বিকেলে শহরের গড়কান্দা মহল্লায় এ ঘটনা ঘটে।

সূত্র জানায়, দুপুরের দিকে কাউন্সিল উদ্বোধন করেন জেলা বিএনপি’র সভাপতি ও সাবেক সংসদ সদস্য মাহমুদুল হক রুবেল। উপজেলা বিএনপি’র আহবায়ক অধ্যক্ষ নুরুল আমীনের সভাপতিত্বে এসময় প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন বিএনপি’র কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী কমিটির সাংগঠনিক সম্পাদক সৈয়দ এমরান সালেহ প্রিন্স। প্রধান বক্তা হিসেবে বক্তব্য রাখেন জেলা বিএনপি’র সাধারণ সম্পাদক হযরত আলী। বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন- বিএনপি’র কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী কমিটির সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক ও জামালপুর জেলা বিএনপি’র সাধারণ সম্পাদক এ্যাডভোকেট শাহ ওয়ারেছ আলী মামুন এবং কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী কমিটির সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক শরিফুল আলম।

নালিতাবাড়ী শহর বিএনপি’র আহবায়ক ও সাবেক পৌর মেয়র আনোয়ার হোসেনের সঞ্চালনায় অন্যান্যের মধ্যে উপজেলা বিএনপি’র সিনিয়র যুগ্ম-আহবায়ক ইউনুছ আলী দেওয়ান, শহর বিএনপি’র যুগ্ম-আহবায়ক শফিকুল ইসলাম তালুকদার রিপন প্রমুখ বক্তব্য রাখেন। কাউন্সিল অধিবেশনে বিভিন্ন ইউনিয়ন ও ওয়ার্ড থেকে সহস্রাধিক নেতাকর্মী অংশ নেন।

যথারীতি কাউন্সিলের প্রথম অধিবেশন শুরু হলে সেখানে যুক্তরাষ্ট্র প্রবাসী ব্যবসায়ী ইলিয়াস খানের সমর্থনে অধিকাংশ নেতাকর্মী শ্লোগান দেয়। কাউন্সিলস্থলের পুরোটাই ইলিয়াস খানের ছবি সম্বলিত ডিজিটাল ব্যানারে ছেয়ে যায়।

অন্যদিকে সাবেক হুইপ ও সাংসদ মরহুম জাহেদ আলী চৌধুরীর স্ত্রী ফরিদা চৌধুরী কাউন্সিলে উপস্থিত হলেও তার সমর্থনে উল্লেখযোগ্য কোন ব্যানার লক্ষ্য করা যায়নি। উপরন্তু একজন সাবেক সাংসদ ও হুইপের স্ত্রী এবং বিএনপি’র একটি গ্রুপের নিয়ন্ত্রক হওয়া সত্বেও কাউন্সিলের ব্যানারে তার কোন নাম রাখা হয়নি। তাকে বক্তব্যের জন্য ডাকা হয়নি।

এছাড়াও কাউন্সিলে যারা প্রার্থী হয়েছেন তাদের অন্যতম হলেন সাবেক পৌর মেয়র ও বর্তমান শহর বিএনপি’র আহবায়ক আনোয়ার হোসেন। কাউন্সিলটি কৌশলগত কারণেই আনোয়ার হোসেনের বাড়ির আঙিনায় চলছিল। এসব ঘিরে ফরিদা চৌধুরীর সমর্থকরা নিজেদের পদবঞ্চিতের শঙ্কায় শুরু থেকেই বিশৃঙ্খলার চেষ্টা করছিল। প্রথম অধিবেশন চলাকালে কয়েকজন যুবক লাঠিসোটা নিয়ে কাউন্সিলে ঢোকার চেষ্টা করলে নেতাকর্মীরা তা প্রতিহত করে পরিস্থিতি সামলে নেন। পরে প্রথম অধিবেশন শেষ হলে দ্বিতীয় অধিবেশন শুরুর আগেই আবারও কতিপয় কর্মী আকস্মিক বাইরে থেকে কাউন্সিলে ঢুকে চেয়ার ছোড়াছুড়ি শুরু করে। ফলে হট্টগোল তৈরি হলে পরিস্থিতি সামাল দিতে দ্বিতীয় অধিবেশন স্থগিত করে কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দ চলে যান।

এদিকে চেয়ার ছোড়াছুড়ির সময় মাথায় চেয়ার লেগে ফেটে আহত হন উপজেলা ছাত্রদলের সদস্য সচিব সাইদুর রহমানের বাবা। নির্ভরযোগ্য সূত্র অনুযায়ী ফরিদা চৌধুরী সমর্থক গ্রুপের নেতৃবৃন্দ পদবঞ্চিতের শঙ্কায় আগে থেকেই মারমুখী ছিলেন। এমনকি তাদের কর্মীরা আগের দিন থেকেই দেশীয় অস্ত্র নিয়ে গোপন মহড়া দিয়েছে বলেও প্রত্যক্ষদর্শী রয়েছে।

এছাড়াও গত কয়েকদিন আগে বিএনপি’র দলীয় কার্যালয়ে কাউন্সিলকে ঘিরে বাকবিতন্ডার একপর্যায়ে সেখানেও মারামারির ঘটনা ঘটে এবং কয়েকজন দৌড়ে রক্ষা পান। ওই সময় সাবেক মেয়র আনোয়ার হোসেনের হস্তক্ষেপে তা নিয়ন্ত্রণে আসে।

দলীয় সূত্র জানায়, দীর্ঘদিন যাবত জাহেদ আলী চৌধুরীর পরিবারের পক্ষ থেকে নেতাকর্মীদের মামলা-মোকদ্দমা থেকে শুরু করে সকল আপদে-বিপদে এমনকি কোনপ্রকার রাজনৈতিক যোগাযোগ না রাখায় কার্যত নেতাকর্মীদের সাথে দূরত্ব তৈরি হয়। আর এ ফাঁকে যুক্তরাষ্ট্র প্রবাসী ব্যবসায়ী ইলিয়াস খান নেতাকর্মীদের পাশে দাড়িয়ে তিনি তার অবস্থান তৈরি করে ফেলেন। ফলে বর্তমানে নালিতাবাড়ী বিএনপি ইলিয়াস খান ও ফরিদা চৌধুরী সমর্থক দুইটি গ্রুপে বিভক্ত।

এ বিষয়ে উপজেলা বিএনপি’র আহবায়ক অধ্যক্ষ নুরুল আমীন বলেন, শুরু থেকেই অত্যন্ত সুশৃঙ্খলভাবে আমাদের নেতাকর্মীরা কাউন্সিলে অংশ নিয়েছিল। কিন্তু আমাদেরই একটি পক্ষের সমর্থকরা তাদের নেতাদের ইন্ধনে কাউন্সিল পণ্ড করতে আকস্মিক এ বিশৃঙ্খলা তৈরি করে। যারা বরাবরই বিভিন্ন সময় বিএনপিতে বিশৃঙ্খলা করে আসছিল, এটি তাদেরই কাজ।

এ বিষয়ে থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা বছির আহমেদ বাদল জানান, সামান্য চেয়ার ছোড়াছুড়ি হয়েছে। এ বিষয়ে যদি কেউ অভিযোগ করে তাহলে আমরা আইনগত ব্যবস্থা নেব।

উল্লেখ্য, সবশেষ গত ২০০৯ সালে উপজেলা ও শহর বিএনপি’র কাউন্সিল আলহাজ্ব জাহেদ আলী চৌধুরীর উপস্থিতিতে শহরের আড়াইআনী বাজারস্থ নালিতাবাড়ী কিন্ডারগার্ডেন স্কুলে সম্পন্ন হয় এবং পূর্ণাঙ্গ কমিটি গঠন করা হয়। ২০১১ সালের ৪ জানুয়ারি জাহেদ আলী চৌধুরীর মৃত্যুবরণ করেন। কমিটির মেয়াদ উত্তীর্ণের পর ২০১৪ সালে আহবায়ক কমিটি গঠন করে দলীয় কার্যক্রম চলে আসছিল।

শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর
© All rights reserved © 2011-2020 BanglarKagoj.Net
Theme Developed By ThemesBazar.Com
error: Content is protected !!