1. nirjoncomputer@gmail.com : Alamgir Jony : Alamgir Jony
  2. admin@banglarkagoj.net : admin :
  3. mehedihasanshakib06@gmail.com : mehedi sakib : mehedi sakib
শনিবার, ২৮ নভেম্বর ২০২০, ০৮:৪৮ পূর্বাহ্ন

পূর্ব শত্রুতার জেরে বিষ প্রয়োগে ধানক্ষেত বিনষ্ট, দিশেহারা তিন কৃষক-কৃষাণী

  • আপডেট টাইম :: রবিবার, ৮ নভেম্বর, ২০২০

নালিতাবাড়ি (শেরপুর) : পূর্ব শত্রুতার জের ধরে আগাছা নাশক বিষ প্রয়োগ করে ২ একর ১২ কাঠা জমির আধাপাকা আমন ক্ষেত বিনষ্ট করে দিয়েছে প্রতিপক্ষের লোকজন। শনিবার (৭ নভেম্বর) উঠতি আমন ক্ষেত পুরে যাওয়ার মতো করে নষ্ট শুরু হলে বিষয়টি দৃষ্টিগোচর হয় শেরপুরের নালিতাবাড়ি উপজেলার কুতুবাকুড়া গ্রামের ক্ষতিগ্রস্থ কৃষক আব্দুল খালেক, সহোদর মালেক ও সমস্ত বানু নামে প্রান্তিক তিন চাষীর। ক্ষতিগস্থ চাষীদের দাবী, জমি সংক্রান্ত পূর্ব শত্রুতার জেরে প্রতিপক্ষ নজরুল ইসলাম এ ঘটনা ঘটিয়েছে।
স্থানীয় সূত্র জানায়, উপজেলার নন্নী ইউনিয়নস্থ কুতুবাকুড়া গ্রামের সহোদর আব্দুল খালেক ও মালেক এবং খালেকের জমি চুক্তিতে ক্রয় করা (এগ্রিমেন্ট) দরিদ্র কৃষাণী সমস্ত বানু ধার-দেনা করে যথাক্রমে খালেক ২ একর, মালেক ৫ কাঠা ও সমস্ত বানু ৭ কাঠা জমিতে স্বর্ণলতা, পাইজাম, সেন্টুশাইল ও বিআর ৩৪ জাতের আমন ধানের চাষ করেন। ইতিমধ্যেই ওইসব জমির ধান পাকতে শুরু করেছে। এরই মধ্যে শনিবার ক্ষতিগ্রস্থ ওই তিন চাষী তাদের জমিতে গেলে মাথা ঘুরে যায়। পুরো ২ একর ১২ কাঠা (২৬০ শতক) জমির আধাপাকা ধান পুরে যাওয়ার মতো নষ্ট হয়ে গেছে। এসময় ধানক্ষেতের পাশে উচ্চমাত্রার আগাছানাশক পড়ে থাকতে দেখা যায়। একমাত্র সম্বল আবাদী জমির উঠতি ফসল নষ্ট হওয়া দেখে কান্নায় ভেঙে পড়েন তারা।
ক্ষতিগ্রস্ত খালেক ও মালেক জানায়, জমি সংক্রান্ত বিরোধ নিয়ে আদালতে মামলা চলছে তাদেরই আরেক আত্মীয় নজরুলের সাথে। নজরুলই শত্রুতাবশত এ ঘটনা ঘটিয়েছে।
এলাকাবাসী জানান, খালেকের জমি কৃষাণী সমস্ত বানু এগ্রিমেন্ট নিয়ে চাষ করেছে। তাই খালেকের জমি ভেবে সমস্ত বানুর জমিতেও বিষ প্রয়োগ করা হয়েছে। ওই গ্রামের নাসির উদ্দিন ও আনোয়ার হোসেন জানান, অনেক দিন থেকে নজরুল ও খালেকের মাঝে জমি নিয়ে বিরোধ ও মামলা চলছে। তাই ঘটনা সত্য হতে পারে। এর আগেও নজরুল অন্য এ কৃষকের সাথে এমন ঘটনা ঘটিয়ে ধরা পড়েছিল।
স্থানীয় ইউপি সদস্য আলমাছ আলী জানান, নজরুল কিছুদিন আগে আমাকে ফোন দিয়ে খালেক ও মালেক এ দুই সহোদরের ধানক্ষেত নষ্ট করে দিবে বলে হুমকী দিয়েছে। তখনই আমি তাকে বুঝিয়ে বারণ করেছিলাম।
স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান একেএম মাহবুবুর রহমান রিটন জানান, এর আগেও নজরুল অন্য এক কৃষকের সাথে শত্রুতা বশত প্রায় ১৫ কাঠা জমির ধান বিষ প্রয়োগে নষ্ট করেছে। কাজেই সবারই ধারণা নজরুলই এমন ঘটনা ঘটিয়েছে।
এ বিষয়ে নালিতাবাড়ী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা বছির আহমেদ বাদল জানান, এ বিষয়ে ক্ষতিগ্রস্থদের পক্ষে নজরুল ও তার মেয়ের জামাতাকে আসামী করে একঠি লিখিত অভিযোগ দেওয়া হয়েছে। বিষয়টি তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা নিব।

শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর
© All rights reserved © 2011-2020 BanglarKagoj.Net
Theme Developed By ThemesBazar.Com
error: Content is protected !!